Header Ads

Header ADS

আগুয়েরোর পেনাল্টি মিসে ম্যান সিটির হার, কেইন এর ইঞ্জুরির দিনে জ্বলে উঠলেন সন।





সার্জিও আগুয়েরোর পেনাল্টি মিসের বড় খেসারতই দিতে হল ম্যানচেস্টার সিটিকে। চ্যাম্পিয়নস লীগের কোয়ার্টার ফাইনালের প্রথম লেগে টটেনহামের মাঠে তারা ১-০ গোলের ব্যবধানে হেরেছে। 

ম্যাচের প্রথম সুযোগ পেয়েছিলো সিটিই। তবে ডেভিড সিলভার শট অনেক বাইরে দিয়ে চলে যায়। ৮ মিনিটে সুযোগ পেয়েছিলেন ডেলে আলি। মাঝমাঠে বল পেয়ে গিয়েছিলেন আলি। তিনি সিসকো কে বল দিয়ে দৌড়াতে শুরু করেন৷ আলি বক্সে ঢোকার পরে সিসকো তার দিকে বল বাড়ান। তবে আলির ভলি বারের উপর দিয়ে চলে যায়।

১৩ মিনিটে পেনাল্টি পায় সিটি। গোলবারের ১২ গজ দূর থেকে লীড নেয়ার সহজ সুযোগ ছিলো তাদের হাতে। টটেনহাম গোলরক্ষক হুগো লরিস তার বাম দিকে ঝাপিয়ে পড়ে পেনাল্টি  বাচিঁয়ে দেন। পেনাল্টি শট নিয়েছিলেন সার্জিও আগুয়েরো। এছাড়া প্রথমার্ধে আর কেউই বলার মত সুযোগ পায়নি। তাই গোলশূন্য থেকেই দুই দল বিরতিতে যায়।

৪৮ মিনিটে আবারও সুযোগ পায় টটেনহাম। বক্সের ডান প্রান্তে বল পেয়েন যান সন। তিনি বাম পায়ে গোলবারের ডানপ্রান্তে মাটি কামড়ানো শট নেন। তার শট এডারসনকে পরাস্ত করলেও বারের বাইরে থেকে চলে যায়।

ম্যাচের ৫৬ মিনিটে টটেনহামের জন্য সুসংবাদ হয়ে আসে হ্যারি কেইনের ইঞ্জুরি। সাইডলাইনে বসে বেশ কিছুক্ষন ধরে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়েছিলেন। তবে শেষ পর্যন্ত আর মাঠে নামার মত ফিট মনে করেননি। তাই ৫৬ মিনিটে তাকে তুলে নেয়া হয়। তার বদলি হিসেবে নামানো হয় লুকাস মৌরাকে। দলের মুল খেলোয়ারকে হারানো ছিল টটেনহামের জন্য একটি বড় ধাক্কা।

ম্যাচের ৭৮ মিনিটে গোল পায় টটেনহাম। এরিকসনের বাড়ানো বল থেকে বক্সের ডানপ্রান্ত থেকে গোল করেন সন। এরপর আর কোনো দলই গোলের দেখা পায়নি। তাই সনের গোলটিই হয়ে থাকল ম্যাচের ফল নির্ধারিত গোল। কোয়ার্টার ফাইনালের দ্বিতীয় লেগ অনুষ্ঠিত হবে আগামী সপ্তাহে ম্যান সিটির মাঠে।

No comments

Theme images by luoman. Powered by Blogger.